বিদ্যুতের বদলে খাম্বা দেয়া বিএনপি শতভাগ বিদ্যুতায়নের পর থেকেই নানাভাবে অপপ্রচার চালাচ্ছে

0
155

মাত্র একযুগ আগেও দেশের অর্ধেকের বেশি মানুষ ছিলেন বিদ্যুৎ সুবিধার বাইরে। শহরে-গ্রামে সবখানে ছিল ভয়াবহ লোডশেডিং। গত ১৩ বছরে বদলে গেছে সেই চিত্র। দেশের প্রতিটি ঘরে, প্রতিটি মানুষের কাছে পৌঁছে গেছে বিদ্যুৎ। নেই লোডশেডিংয়ের ভয়াবহ সেই যন্ত্রণা।

এই উন্নয়নের গল্প এখন সবার জানা থাকলেও দেশের ভালো না চাওয়া, বিদ্যুতের বদলে খাম্বা দেয়া তৎকালীন বিএনপি সরকারের নেতৃস্থানীয়রা শতভাগ বিদ্যুতায়নের ঘোষণা শোনার পর থেকেই নানাভাবে অপপ্রচার চালিয়ে যাচ্ছেন।

এ ঘটনায় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমকে হাতিয়ার করে বিএনপি-জামায়াত বিভ্রান্তিমূলক তথ্য ছড়িয়ে দিচ্ছে বলে নেটিজেনরা অভিযোগও তুলেছেন। নেটিজেনরা জানান, যে বিদ্যুৎ নিয়ে বিএনপি-জামায়াত এমন অপপ্রচার চালাচ্ছে তাদের মনে রাখা উচিত এই বিদ্যুৎ কিন্তু শেখ হাসিনার সরকারই দিয়েছে। ডিজিটাল বাংলাদেশের সুবিধা নিয়ে দেশের বিরুদ্ধে কথা বলে অপপ্রচার চালানোই যেন তাদের রাজনীতি।

আরও পড়ুনঃ দেশে শতভাগ বিদ্যুতায়নের ঘোষণা দিলেন প্রধানমন্ত্রী

এমন রাজনীতি জনগণ দেখতে চায় না। রাজনীতির ময়দান যেখানে হওয়া উচিত আদর্শিক সেখানে বিএনপির রাজনীতি মানেই নেতিবাচক চাহনি।অন্যদিকে প্রকল্প সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন, স্বাধীনতার পর ২০০৯ সালের জানুয়ারি পর্যন্ত দেশের জনগোষ্ঠীর ৪৭ শতাংশ বিদ্যুতের সুবিধা পেয়েছিল। এরপর গত এক যুগে বাকি ৫৩ শতাংশ মানুষ বিদ্যুৎসংযোগের আওতায় এসেছে। এজন্য দেশে একের পর এক বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণ করেছে সরকার। বিদ্যুৎ

পটুয়াখালীর রাঙ্গাবালী উপজেলার বিদ্যুতের সুফল ভোগ করা স্থানীয়রা জানিয়েছেন, বেশিরভাগ শিশু ছয় মাস আগেই রাত আটটার মধ্যে ঘুমিয়ে যেতো। কিন্তু এখন তাদের জীবনের গল্পটা বদলে গেছে। আর সেটা বদলে দিয়েছে বিদ্যুৎ।অন্ধকারে ডুবে থাকা বিচ্ছিন্ন দীপ রাঙ্গাবালীরই ২৫ হাজার পরিবারের শিশুরা এখন রাত জেগে পড়ালেখা করতে পারেন বলে তারা বর্তমান সরকারের প্রশংসা করেন। সেই সাথে তারা বলেন, বিগত সরকারের আমলে আমরা শুধু আশার বাণীই শুনেছি। কার্যত কোনও সুফল পাইনি। উল্টো খালেদা জিয়ার আমলে আমরা উপহার হিসেবে পেয়েছিলাম অসংখ্য খাম্বা।

আরও পড়ুনঃ শতভাগ বিদ্যুতের সাফল্যে বাংলাদেশ

আর বঙ্গবন্ধু কন্যার কাছ থেকে পেয়েছি বিদ্যুতের আলো। এ প্রসঙ্গে রাজনৈতিক বিশ্লেষক অধ্যাপক এ আরাফাত বলেন, বিএনপি আমলে বিদ্যুতের খাম্বা লাগিয়ে ২১ হাজার কোটি টাকা লোপাট করা হয়েছিল। বিদ্যুতের দেখা সাধারণ জনগণ পায়নি। বর্তমান সরকার ক্ষমতায় আসার পর পরই জনগণের দুঃখ দূর করার জন্য পদক্ষেপ নিয়ে আজ পুরো বাংলাদেশ আলোর পথে যাত্রা করতে সক্ষম হয়েছে। আমাদের ছেলে মেয়েরা এখন রাত জেগে পড়াশোনা করছে। এ আরাফাত বলেন, খাম্বা তারেক-খালেদার কবলে দেশ যাতে আর কখনো অন্ধকারে হারিয়ে না যায় সেজন্য সকলকে সজাগ দৃষ্টি রাখতে হবে। অন্যথায় দেশ আবারো অন্ধকারের সাগরে নিমজ্জিত হতে পারে।

আরও পড়ুনঃ

মতামত দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে